জয়নাল আবেদীন হিরো,স্টাফ রিপোর্টারঃ 
মেয়রের দুই গালে, জুতা মারো তালে তালে’, ‘নষ্টা মেয়র অভিশাপ, অপকর্মের নেই মাপ’, দূর্নীতিবাজ মেয়রের পদত্যাগ চাই, করতে হবে’, ‘অসভ্য মেয়রের বিউটি পার্লার বন্ধ করো, করতে হবে’, ‘গরীবের চাউ্ল চোর মেয়রকে চাইনা চাইনা’, ‘লুটেরা মেয়রের বিচার চাই, করতে হবে’, ‘পবিত্র পৌরসভাকে নোংরাকারী স্বেচ্ছাচারী মেয়রের অপসারণ চাই’। 

এমন শ্লোগানে শ্লোগানে উত্তাল শহরের প্রধান প্রধান সড়ক। প্রচন্ড গরম আর প্রখর রোদকে উপেক্ষা করে রাজপথে নেমেছে প্রায় দুই হাজার নারী। তাদের দাবী নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌরসভার প্রথম নারী মেয়র রাফিকা আকতার জাহান বেবীর অপসারণ। পৌর পরিষদের ২০ জন কাউন্সিলরের মধ্যে ১৪ জনের নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিলে শামিল হয়েছেন নারী-শিশুসহ সর্বস্তরের মানুষ। এই আন্দোলনে সমর্থন জানিয়ে যোগ দিয়েছেন নানা ভোগান্তিতে অতিষ্ঠ সাধারণ সৈয়দপুরবাসীও। 

রবিবার (২৮ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১১ টায় রেলওয়ে মাঠে পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ড থেকে সমবেত হয়ে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে। শহীদ ডা. জিকরুল হক সড়ক হয়ে বঙ্গবন্ধু চত্বর দিয়ে শেরেবাংলা সড়ক প্রদক্ষিণ করে প্রেসক্লাবের সামনে এসে প্রতিবাদ সমাবেশে মিলিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-১ শাহিন হোসেন। সঞ্চালনা করেন ১৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জোবায়দুর রহমান শাহীন। 

বক্তব্য রাখেন, ১১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর এরশাদ হোসেন পাপ্পু, ১২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল খালেক সাবু, ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনোয়ারুল ইসলাম মানিক, মেয়রের ননদ আঞ্জুয়ারা বেগম,  দেবর বুলুর স্ত্রী লোপা আক্তার, ১০, ১১ ও ১২ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর আফরোজা পারভীন, ১৩, ১৪ ও ১৫ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর সাবিনা সাকিল, তরুণ ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক সৈয়দ শাহাজাদা আলম, প্রতিবাদী গৃহবধূ শ্লোগান কন্যা সোনিয়া আহমেদ।