হেলাল উদ্দিন পার্বতীপুর দিনাজপুর প্রতিনিধি

আজ পহেলা বৈশাখ-বাংলা নববর্ষ। বাংলা বর্ষপঞ্জিতে যুক্ত হলো নতুন বাংলা বর্ষ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ।
জীর্ণ পুরাতন সবকিছু ভেসে যাক, ‘মুছে যাক গ্লানি’ এভাবে বিদায়ী সূর্যের কাছে এ আহ্বান জানায় বাঙালি। ১ বৈশাখ আমাদের সকল সঙ্কীর্ণতা, কুপমন্ডুকতা পরিহার করে উদারনৈতিক জীবন-ব্যবস্থা গড়তে উদ্বুদ্ধ করে। আমাদের মনের ভিতরের সকল ক্লেদ, জীর্ণতা দূর করে আমাদের নতুন উদ্যোমে বাঁচার অনুপ্রেরণা যোগায়। আমরা যে বাঙালি, বিশ্বের বুকে এক গর্বিত জাতি, পহেলা বৈশাখের বর্ষবরণে আমাদের মধ্যে এই স্বাজাত্যবোধ এবং বাঙালিয়ানা নতুন করে প্রাণ পায়, উজ্জীবিত হয়।
অন্যদিকে, পহেলা বৈশাখ বাঙালির একটি সার্বজনীন লোকউৎসব। এদিন আনন্দঘন পরিবেশে বরণ করে নেওয়া হয় বাংলা নতুন বছরকে। কল্যাণ ও নতুন জীবনের প্রতীক হলো নববর্ষ। অতীতের ভুলত্রুটি ও ব্যর্থতার গ্লানি ভুলে নতুন করে সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনায় উদ্যাপিত হয় নববর্ষ।

আজ ১৪ এপ্রিল ১৪৩১ বঙ্গাব্দ ১পহেলা বৈশাখে বর্ণিল উৎসবে পার্বতীপুর উপজেলা চত্বরে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে মঙ্গল যাত্রা, আলোচনা সভা ও লোকজ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাম্মৎ ফাতেমা খাতুন।
উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি হাফিজুল ইসলাম প্রামানিক।
পৌর মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আমজাদ হোসেন।
উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আমিরুল মোমেনীন মমিন। উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রুকশানা বারী রুকু।পার্বতীপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ চিত্র রঞ্জন রায়। উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সুলতানা নাসরিন। উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাগণ ও উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষকগণসহ ইউনিয়ন চেয়ারম্যানগন উপস্থিত ছিলেন।